গোসাইরহাট মেঘনা নদীতে ড্রেজার দ্বারা বালু উত্তোলনের মহাউৎসব

স্টাফ রিপোর্টার//শরীয়তপুর জেলার গোসাইরহাটের পূর্ব কোদালপুর ইউনিয়নের ০৬ নং ওয়ার্ড ঠান্ডার বাজার মেঘনা নদীতে দীর্ঘদিন ধরে একটি অসাধু চক্রমহল আইন অমান্য করে ড্রেজার দ্বারা বালু উত্তোলনের জমজমাট ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন।

সরোজমিনে গিয়ে দেখা যায়, অসাধু চক্রমহলটি প্রভাব খাটিয়ে আইনের তোয়াক্কা না করে নদীতে বালুমহল বানিয়ে লক্ষ-লক্ষ টাকার বালু উত্তোলনের ব্যবসা করে যাচ্ছেন। এসব ব্যবসার সঙ্গে যুবলীগ সভাপতি ভি এম আব্দুস সাত্তার, সুজন দেওয়ান ও সুমন দেওয়ান জড়িত আছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ বিষয়ে সুজন দেওয়ান জানান, বালু উত্তোলন করছি, অনুমতি নিয়েই করছি। তাছাড়া নদী আমাদের, জমি আমাদের আর সরকারও আমাদের। তিনি বলেন, আমরা বিভিন্ন বোটে ও বিভিন্ন ট্রলারে বালু বিক্রি করি। ৩ থেকে ৪ টি ড্রেজার দিয়ে কাজ করি। এগুলো যুবলীগ সভাপতি ভি এম আব্দুস ছাত্তার নিয়ন্ত্রণ করেন।

যুবলীগ সভাপতি ভি এম আব্দুস সাত্তারের সাথে আলাপকালে তিনি বলেন, আমি ঢাকায় আছি এগুলো এখন সুজন দেওয়ান ও সুমন দেওয়ান নিয়ন্ত্রণ করে তারা বোটে আছে তাদের সাথে কথা বলেন।

স্থানীয়রা বলেন, তারা খুব প্রভাবশালী। এ চক্রের বিরুদ্ধে কথা বললে আমরা এলাকায় থাকতে পারবোনা। নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, তারা প্রশাসনের একটি মহল ম্যানেজ করে কাজ করে যাচ্ছেন।

এ ব্যাপারে গোসাইরহাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো: আলমগীর হোসাইন এর সঙ্গে মোবাইল ফোনে আলাপকালে তিনি বলেন, এ ব্যাপারে আমার কাছে আগেও অভিযোগ এসেছিল। একটি অসাধু চক্ররা নদীতে ড্রেজার চালায় কয়েক দিন আগে আমরা তা ভেঙ্গে চুরে দিয়ে আসছি। এখন আবার শুনলাম চলছে, নদীর পথ তাই, আমরা চলে আসলে আবার তারা এ কার্যক্রম চালায়। আমরা আইনগত আবার ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

Facebook Comments

About Sm Sohage

Check Also

গোসাইরহাট উপজেলায় ‘‘বৈদেশিক কর্মসংস্থানের জন্য দক্ষতা ও সচেতনতা’’ শীর্ষক সেমিনার ও প্রেসব্রিফিংর

আব্দুল বারেক ভূইয়া//আন্তর্জাতিক অভিবাসি দিবস উপলক্ষে গোসাইরহাট উপজেলায় ‘‘বৈদেশিক কর্মসংস্থানের জন্য দক্ষতা ও সচেতনতা’’ শীর্ষক …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *